পার্লামেন্টে ইমরান ওসামা বিন লাদেনকে শহিদ আখ্যা দিলেন

0
57

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক: আল কায়েদা জঙ্গি তথা ৯/১১-র মূল চক্রী ওসামা বিন লাদেনকে ফের শহিদ বলে সম্বোধন করলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে ইমরান বলেন, অ্যাবোটাবাদে ঢুকে মার্কিন সেনা ওসামাকে হত্যা করেছে। যার ফলে অস্বস্তির মুখে পড়েছিল পাক সরকার।

এ দিন পাক পার্লামেন্ট ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলিতে দাঁড়িয়ে ওসামাকে শহিদ বলে উল্লেখ করেন ইমরান। নিজের ভাষণে ইমরান বলেন, “আমরা খুবই বিব্রতবোধ করেছিলাম… যখন মার্কিন সেনাবাহিনী (পাকিস্তানে) ঢুকেছিল এবং ওসামা বিন লাদেনকে অ্যাবোটাবাদে হত্যা করেছিল… তাঁকে শহিদ করে।”

৯/১১-এর মূল ষড়যন্ত্রকারী ওসামাকে ধরতে পাকিস্তানের অ্যাবোটাবাদের গ্যারিসন টাউনে অভিযান চালায় মার্কিন নেভি সিল। ২০১১ সালের সেই অভিযানে নিহত হন আল কায়েদা জঙ্গি ওসামা। গোটা ঘটনায় পাক সরকারকে অন্ধকারে রাখা হয়েছিল বলে এর আগেও আপত্তি জানিয়েছিলেন ইমরান। ওসামার বিরুদ্ধে বিশ্ব জুড়েই বহু জঙ্গিহানার অভিযোগ ছিল। ২০০১-তে আমেরিকার পাঁচটি শহরে হাইজ্যাক করা বিমান নিয়েও হামলা চালায় আল কায়েদা। তাতে নিহত হন তিন হাজারেরও বেশি। ওই হামলার মূল পাণ্ডা হিসাবে দীর্ঘ দিন ধরেই ওসামার বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়েছে মার্কিন সরকার। অবশেষে ২০১১-তে পাকিস্তানের অ্যাবোটাবাদে ওই মার্কিন অভিযানে নিহত হন ওসামা।

তবে এই প্রথম নয়, এর আগেও ওসামাকে শহিদ বলে আখ্যা দিয়েছেন ইমরান খান। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার আগে ওসামাকে জঙ্গি বলে সম্বোধন করতে অস্বীকার করেছিলেন ইমরান। এমনকি, আমেরিকার প্রথম প্রেসিডেন্ট জর্জ ওয়াশিংটনের সঙ্গে ওসামার তুলনাও করেছিলেন ইমরান। একটি টেলিভাশন সাক্ষাৎকারের ইমরান এক সময় বলেছিলেন, ব্রিটিশদের কাছে জর্জ ওয়াশিংটন ছিলেন জঙ্গি এবং অন্যদের কাছে শহিদ।

ওসামার বিরুদ্ধে মার্কিন অভিযান নিয়েও এর আগে মুখ খুলেছিলেন ইমরান। গত সেপ্টেম্বরেই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সফরে ইমরান জানিয়েছিলেন, অ্যাবোটাবাদে ওসামার উপস্থিতির খবর মার্কিন গোয়েন্দাদের জানিয়েছিল পাকিস্তান। ইমরানের মতে, পাক সরকারকে পুরোপুরি অন্ধকারে রেখে ওসামার বিরুদ্ধে মার্কিন সেনার সেই গোপন অভিযান চালানো উচিত হয়নি। একটি মার্কিন টেলিভিশন চ্যানেলে ইমরান জানিয়েছিলেন, ওই অভিযানের ফলে অস্বস্তির মুখে পড়েছিল পাক সরকার। আমেরিকার সঙ্গে সুসম্পর্কের বিষয়টি মাথায় রেখে ওই অভিযানের কথা পাক সরকারকে জানানো উচিত ছিল বলেও মনে করেন ইমরান খান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here